আল কুরআন এক মহাবিস্ময়

লেখক ড. মরিস বুকাইলি , গ্যারি মিলার , ডঃ কিথ এল. মূর

প্রকাশক বাংলাদেশ ইসলামিক সেন্টার

আইএসবিএন 984843035X

পৃষ্ঠা সংখ্যা ৮০

মুদ্রিত মুল্য ৳ ৮০.০০

ছাড়ে মুল্য ৳ ৬৮.০০(-15% Off)

রেটিং

ক্যাটাগরি কুরআন বিষয়ক আলোচনা

আজকের মুসলিম উন্মাহর সবচেয়ে বড় সমস্যা কুরানকে ছেড়ে দিয়ে বিভিন্ন মতবাদকে আপন করে নেয়া।কিছু মুসলিম নামধারী আজকে কুরানকে উপহাস করে তা থেকে ভুল বের করার চেষ্টা করে,ইন্টারনেট খুজলে আমরা হাজার হাজার লেখা দেখতে পাব কুরানের বিরুদ্ধে।আজকে আমরা উপস্হা্পন করব

এমন তিনজন অমুসলিম ব্যক্তিকে যারা কুরানের আয়াত দেখে বিস্ময় প্রকাশ করেছেন এবং মানতে বাধ্য হয়েছেন এর অলৌকিকত্য।এই তিনজন ব্যক্তি হলেন ড মরিস বুকাইলি,ড কিথ মূর,ও গ্যারি মিলার।ড মরিস বুকাইলি তার The Bible The Quran and Science এ বলেছেন,The Quran does not contain a single statement that is assailable from a modern scientific point of view.ড কিথ মুর তার আলোচনা ভ্রুনতও্বের উপর সীমাবদ্ধ রেখেছেন।মিলারের কিছু মৌলিক গবেষনা স্থান পেয়েছে এতে,বস্তুত তারা হলেন এমন এক সভ্যতার মানুষ যেখানে সমস্ত কিছু যুক্তির বিচারে বিজ্ঞানের আলোকে পরিমাপ করা হয়।আসুন জানি তারা কি বলে?একজন মানুষ যখন নিরপেক্ষ দৃষ্টিতে কুরাআনকে দেখবে তখন তার সামনে উদ্ভাসিত হবে কুরানের সত্যতা,আলোকিত করবে তার জীবনকে দেখাবে তার জীবন চলার পথকে। কুরান কিন্তু কোন বিজ্ঞানের বই না এতে আছে আয়াত যার মধ্যে কিছু আয়াত বিজ্ঞান এর সাথে যুক্ত।আল্লাহ জানতেন মানুষ এক সময় বিজ্ঞানে উন্নতি লাভ করবে তারা সবকিছু বিচার করবে বিজ্ঞানের মাপকাঠিতে,তাই এখানে এমন কিছু আয়াত যুক্ত করা হয়েছে যা ১৪০০ বছর আগে মানুষের কাছে বোধগম্য ছিল না,কিন্তু বর্তমানের মানুষ তার কিছুটা আয়ত্ব করতে পেরেছে।তাই যারা বলে কুরানের সাথে বিজ্ঞানকে মিলানো ঠিক না তাদেরকে একথা বুঝতে হবে যে এমন অনেক আয়াত কুরানে আছে যা বিজ্ঞানের আলোকে ব্যাখা করা সম্ভব।আসুন পাঠক চেষ্টা করি জীবনের কিছুটা সময় সেই পথে চলতে যিনি আপনাকে আমাকে দশ মাস মায়ের গর্ভে এক বিজ্ঞানময় অবস্থায় লালন পালন করে এই পৃথিবীতে এনেছেন।

আপনি লগড ইন নাই, দয়া করে লগ ইন করুন

এই বিষয়ে অন্যান্য বই